২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, শনিবার ০৩:১৭:২২ পিএম
সর্বশেষ:

১৯ জুলাই ২০১৯ ০২:২৫:৩৮ এএম শুক্রবার     Print this E-mail this

ইসলামী রাজনীতি ব্যবচ্ছেদ বইটি গুরুপুর্ণ --অধ্যাপক এমাজউদ্দীন আহমদ

ডেক্স রিপোর্ট
বাংলার চোখ
 ইসলামী রাজনীতি ব্যবচ্ছেদ বইটি গুরুপুর্ণ --অধ্যাপক  এমাজউদ্দীন আহমদ

দেশের ইসলামী রাজনৈতিক দলগুলো আটকে আছে নানা কারণে।  ষড়যন্ত্র এবং ভৌগলিক প্রেক্ষাপট কারণ বটে; তবে আটকে থাকা ও বিপর্যয়ের জন্য ইহুদী-নাসারাদের কিংবা বিদেশি ষড়যন্ত্র নয়; তারা নিজেরাই দায়ী বেশির ভাগ ক্ষেত্রে। সীমাবদ্ধতা থেকে তারা বেরিয়ে আসতে পারছে না। সাংবাদিক ও গবেষক এহসানুল হক জসীম তাঁর ‘বাংলাদেশের ইসলামি রাজনীতির ব্যবচ্ছেদ’ গবেষণা গ্রন্থে বহু তথ্য সন্নিবেশিত করে প্রমাণ করলেন ইসলামপন্থীদের সীমাবদ্ধতা এবং বিশ্লেষণ করলেন আটকে থাকার কারণগুলো। বইটি এদেশের রাজনৈতিক ইসলাম ও ধর্মীয় রাজনীতির ‍উপর এক অনবদ্য প্রামাণ্য গ্রন্থ।

বুধবার (১৭ জুলাই) রাতে বইটির প্রকাশনা উৎসবে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন এই অনুষ্ঠানের প্যানেল আলোচক ও বক্তারা। প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান গার্ডিয়ান পাবলিকেশন্স এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে রাজধানীর রমনা রেস্তোরাঁয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি এমেরিটাস প্রফেসর ড. এমাজউদ্দীন আহমদ। বইয়ের উপর লিখিত পর্যালোচনা উপস্থাপন করেন লেখক ও গবেষক মোঃ আব্দুল হাই আল হাদী।

প্রকাশক নূর মোহাম্মদের উপস্থাপনায় আলোচনায় অংশ নেন বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান সৈয়দ মুহাম্মদ ইব্রাহীম বীরপ্রতীক, ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা আব্দুল লতিফ নেজামী, বাংলা সাহিত্যের অন্যতম প্রধান কবি আল মুজাহিদী, সাবেক এমপি গোলাম মাওলা রনি, খেলাফত মজলিসের মহাসচিব ড. আহমেদ আব্দুল কাদের, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আশরাফ আলী আকন, পটুয়াখালি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক ড. আব্দুল লতিফ মাসুম, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মুজতাবা রিজা আহমাদ, লেখক ও গবেষক শাহ আব্দুল হালিম, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ড. রফিকুল ইসলাম, ছাত্র মজলিসের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি রুহুল আমিন সাদী, সিনিয়র সাংবাদিক তারেক সালমান, ন্যাপের মহাসচিব গোলাম মোস্তফা ভুইয়া, সিনিয়র সাংবাদিক মোহাম্মদ আতিক, ডিইউজে সদস্য- মোহাম্মদ অলিদ সিদ্দিকী তালুকদার,  জাতীয়তাবাদী তাঁতী দলের ড. মনিরুজ্জামান মনির, ইন্জিনিয়ার এম. আজিজুল ইসলাম প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, জনগণের বড় অংশটি ধর্মীয় দলকে সমর্থন না করলেও মুসলিম প্রধান রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশে ধর্মীয় রাজনীতির একটা প্রভাব আছে। বিষয়টি নিয়ে কাজ হলেও সেটা ভাসা ভাসা। নির্মোহ ও বস্তুনিষ্টভাবে খুব একটা কাজ হয়নি। সে সীমাবদ্ধতার জায়গা দখল করে আছে আবেগ নির্ভর যুক্তিহীন আলোচনা-সমালোচনা। লেখক ও গবেষক এহসানুল হক জসীম দেশের ইসলাম পছন্দ দলগুলোর উপর কাজ করেছেন নিরপেক্ষ অবস্থান থেকে। তাঁর মলাটবদ্ধ গবেষণা গ্রন্থ ইসলামি রাজনীতি নিয়ে উৎসুক পাঠকের তৃষ্ণা নিবারণে অনন্য ভূমিকা রাখবে।

সভাপতির বক্তব্যে ড. এমাজউদ্দীন আহমদ বলেন, বৈশ্বিক ঘটনাপ্রবাহ ও ঐতিহাসিক পরস্পরপরায় এখানে অনেকগুলো ইসলামী রাজনৈতিক দল বিকশিত হয়েছে। এসব দলের রয়েছে নানা সীমাবদ্ধতা। তাদের আটকাবস্থা ও বর্তমান অবস্থান নিয়ে ‘বাংলাদেশের ইসলামি রাজনীতির ব্যবচ্ছেদ’ একটি প্রামাণ্য গ্রন্থ। এমন দুর্লভ কিছু তথ্য রয়েছে বইটিতে, যা অনেকেরই জানা নেই।

এমন একটি গবেষণা গ্রন্থ লেখার জন্য এই রাষ্ট্রবিজ্ঞানী লেখককে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, যারা রাজনীতি, ইসলামী রাজনীতি, বাংলাদেশের রাজনীতি নিয়ে ধারণা রাখতে চান তাদের জন্য বইটি বেশ কাজে লাগবে। অন্যদিকে, দেশের ধর্মীয় দলগুলোর নেতা-কর্মীরা নিজেদের ভুল সংশোধনের উদ্দেশ্যে পাঠ করলে বইটি তাদের জন্য প্রতিষেধক হিসেবে কাজ করবে।

সৈয়দ মুহাম্মদ ইব্রাহীম বীরপ্রতীক বলেন, নানা বাস্তবতায় ইসলামী রাজনৈতিক দলগুলোকে নিয়ে একাডেমিক গবেষণার প্রয়োজন ছিল। এটাই সম্ভবত ইসলামপন্থীদের সীমাবদ্ধতা ও সমস্যা নিয়ে প্রথম গবেষণা যা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সম্পন্ন হয়। এরকম গবেষণা আরো হওয়া দরকার।

গোলাম মাওলা রনি বলেন, বাংলাদেশে ইসলামী রাজনীতি একাডেমিক কাজ এই বইটি দিয়ে শুরু হল।

রুহুল আমিন সাদী বলেন, শত শত তথ্য সন্নিবেশিত করে এহসানুল হক জসীম তাঁর থিসিসে প্রমাণ করলেন, বিপর্যয়ের জন্য ইহুদী নাসারা নয় আমরা নিজেরাই দায়ী। আমাদেরকে এই অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। ইসলামী দলগুলোর নেতারা সমালোচনা সহ্য করতে পারেন না। কেউ নেতার ভুল ধরিয়ে দিলে সে ওই দলে আর আগাতে পারেনা। `বাংলাদেশের ইসলামি রাজনীতির ব্যবচ্ছেদ` বইতে যে ভুলগুলো ধরিয়ে দেওয়া হয়েছে, তা আমলে নেওয়া দরকার।

উল্লেখ্য, বইটির লেখক এহসানুল হক জসীমের জন্ম সিলেটের কানাইঘাট উপজেলায়। তিনি বর্তমানে একটি জাতীয় ইংরেজি দৈনিকের সিনিয়র রিপোর্টার হিসেবে কর্মরত আছেন এবং সে সাথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পিএইচডি গবেষক হিসেবে আছেন

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
সম্পাদক
শরীফ মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক
নাঈম পারভেজ অপু
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক
মমতাজ বেগম
কার্যালয়
১০৫, এয়ারপোর্ট রোড, আওলাদ হোসেন মার্কেট (৩য় তলা)
তেজগাঁও, ঢাকা-১২১৫।
ফোন ও ফ্যাক্স :+৮৮০-০২-৯১০২২০২
সেল : ০১৭১১২৬১৭৫৫, ০১৯১২০২৩৫৪৬
E-Mail: banglarchokh@yahoo.com, banglarchokh.photo1@gmail.com
© 2005-2019. All rights reserved by Banglar Chokh Media Limited
Developed by eMythMakers.com
Close