১৪ অক্টোবর ২০১৯, সোমবার ১০:২৪:৫২ এএম
সর্বশেষ:

০৭ অক্টোবর ২০১৯ ০৭:৩৩:৩২ পিএম সোমবার     Print this E-mail this

মানুষের মনে আনন্দ আছে বলেই আজ পূজার সংখ্যা বেড়েছে : প্রধানমন্ত্রী

ডেক্স রিপোর্ট
বাংলার চোখ
 মানুষের মনে আনন্দ আছে বলেই আজ পূজার সংখ্যা বেড়েছে : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন: দেশে এখন সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় আছে। মানুষের আর্থিক সচ্ছলতাও বৃদ্ধি পেয়েছে। মানুষের মনে আনন্দ উৎসব আছে বলেই আজ পূজার সংখ্যা বেড়েছে। আমরা সব ধর্মের মানুষ উৎসবটা পালন করি। আর সেই পরিবেশ বজায় থাকুক আমরা সেটাই চাই।

সোমবার বিকেলে রাজধানীর ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দির পরিদর্শন করেন প্রধানমন্ত্রী।


এসময় তিনি বলেন: বাংলাদেশ সারা বিশ্বে এখন মর্যাদা নিয়ে চলে, বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের রোল মডেল। একসময় ছিল বাংলাদেশের মানুষ শুনলে মনে করতো ফকির-মিসকিন। এখানে দারিদ্র, দুর্ভিক্ষ প্রাকৃতিক দুর্যোগ লেগেই থাকে। কিন্তু বাংলাদেশ এখন আর সেই অবস্থায় নেই। বাংলাদেশকে এখন সবাই সমীহ করে, সম্মান করে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন: অনেকেই এখন বাংলাদেশকে অনুসরণ করার কথাও বলে। এগুলো কঠোর পরিশ্রম, সংগ্রাম ও আন্দোলন, গণতান্ত্রিক ও অর্থনৈতিক পরিকল্পনার মধ্যে দিয়ে অর্জন করতে হয়েছে। যার ফলে আপনারা দেখছেন দিন দিন পূজার সংখ্যা বেড়েই চলেছে।


শেখ হাসিনা বলেন: গত ৫ ও ৬ তারিখ সরকারি সফর শেষে রাতেই ফিরে এসেছি, আপনাদের সাথে যাতে সাক্ষাৎ করতে ও শুভেচ্ছা বিনিময় করতে পারি। আমরা যদি দেখি প্রতিটি ধর্মের মর্মবাণী একটাই, সহনশীলতা ও শান্তির কথা বলা হয়েছে। তারপরও মাঝে মাঝে অনেক রকমের ঘটনা ঘটে যায়। যার যার ধর্ম সে সে পালন করবে। প্রত্যেক ধর্মের প্রতি সম্মান ও সহানুভূতি থাকলেই একটি দেশকে ঐক্যবদ্ধ করতে পারে, উন্নত করতে পারে, সমৃদ্ধ করতে পারে।

তিনি বলেন: আমরা এই দেশকে ক্ষুধা ও দ্রারিদ্য মুক্ত করতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি। পরিবারের সকল সদস্যকে হারিয়ে শোক ব্যথা বুকে নিয়েও শুধু একটা কারণেই কঠোর পরিশ্রম করে যাচ্ছি। এই দেশের মানুষের বাসস্থান, চিকিৎসা শিক্ষা ছিল না। তাদের ভাগ্য পরিবর্তনের জন্য আমার বাবা দেশকে স্বাধীন করেছিলেন। এদেশের মানুষের কথা চিন্তা করে তাদের জন্য আমার মা-বাবা ত্যাগ স্বীকার করেছেন। আর এ লক্ষ্যে আমিও কাজ করে যাচ্ছি। যার সুফল আজকে সারাদেশের মানুষ পাচ্ছে, ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে গ্রাম থেকে শহর পর্যন্ত সবাই এর সুফল পাচ্ছে।

শেখ হাসিনা বলেন: আপনারা ধর্মীয় উৎসবে যাতে উৎসবমুখরভাবে উদযাপন করতে পারেন তার জন্য শান্তি ও নিরাপত্তায় আমাদের পুলিশ বাহিনী দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। সেই ক্ষেত্রে আপনারা যদি ভাগ ভাগ না করে সম্মিলিতভাবে প্রতিষ্ঠিত পূজা মণ্ডপে পূজার আয়োজন করেন তাহলে নিরাপত্তা দেয়াটা আরও সহজ হয়ে যায়। আরও সুন্দর পরিবেশ আমরা তৈরি করতে পারি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন: বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে, জাতির পিতার স্বপ্নের ক্ষুধা মুক্ত দারিদ্রমুক্ত দেশ আমরা গড়ে তুলবো। আমরা এখন উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছি তা বজায়ে রাখতে হবে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
সম্পাদক
শরীফ মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক
নাঈম পারভেজ অপু
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক
মমতাজ বেগম
কার্যালয়
১০৫, এয়ারপোর্ট রোড, আওলাদ হোসেন মার্কেট (৩য় তলা)
তেজগাঁও, ঢাকা-১২১৫।
ফোন ও ফ্যাক্স :+৮৮০-০২-৯১০২২০২
সেল : ০১৭১১২৬১৭৫৫, ০১৯১২০২৩৫৪৬
E-Mail: banglarchokh@yahoo.com, banglarchokh.photo1@gmail.com
© 2005-2019. All rights reserved by Banglar Chokh Media Limited
Developed by eMythMakers.com
Close