৩১ মার্চ ২০২০, মঙ্গলবার ০৯:৪৭:২৪ পিএম
সর্বশেষ:

১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ০১:৩৮:৫৪ এএম সোমবার     Print this E-mail this

হেয়ালী নয়,সতর্ক হোন

ডেক্স রিপোর্ট
বাংলার চোখ
 হেয়ালী নয়,সতর্ক হোন

সরকারি কর্মকর্তা তাদের নিজস্ব ফেসবুক পেইজে সমাজে ঘটে যাওয়া না ধরনের  সত্য ঘটনা ,অভিজ্ঞতা ইত্যাদি তুলে ধরেন । পুলিশের একজন চৌকশ, দক্ষ, সৎ এবং  মানবিক কর্মকর্তা কিসলু টুটুলের ওয়াল থেকে লেখাটা নেয়া। হয়তো এ লেখায় বেঁচে যেতে পারে একটি জীবন , একটি সংসার ,একটি পরিবার। শতর্ক হতে পারে লাখো জন।

সবাইকে সর্তক হওয়ার অনুরোধ         
কিসলু টুটুল
আমার কর্ম জীবনের একটা বিরল অভিজ্ঞতা শেয়ার করব। যেখানে একটা সর্তকবাণী তোদের ব্যক্তি জীবনে নিজের, আত্বীয় পরিজনের কাজে আসবে। আমরা সবাই ব্যক্তিগত জীবনে কোন না কোন সময় মোবাইলে নিজের ছবি তুলেই থাকি। এই ছবি সব সময় এক রকম তুলি না। নিজের একান্ত সময়ে কখনো কখনো ঘরের নির্জন কক্ষে বস্ত্রহীন, কখনো ডাক্তারের পরামর্শে নিজের গোপনাঙ্গের, বক্ষের উলঙ্গ ছবি মোবাইলে ধারণ করে থাকে। এই বিষয়ে একটা দৃষ্টান্ত দিতেই এই পোস্ট। গত ২০১৭ সালের মাঝামাঝি কোন এক সময় পড়ন্ত বিকালের গোধূলি লগ্নে অামার বসের কক্ষে এক মা তার সদ্য (৬ মাসের) বিবাহিত অস্পরা এক যুবতী নিয়ে হাজির হয়। তাদের কক্ষে প্রবেশের ২০/২৫ মিনিট পরে বসের কক্ষে আমার তলব। স্যারের কথা শুরুর অাগে এক ঝলক দেখে নিয়ে স্যারকে বললাম কেন এই অধমকে জরুরি তলব। স্যার বললেন তুমি পারবে তাদের সমস্যা সমাধান করতে? একটু বলে রাখি আমার সাইবার ক্রাইম সংক্রান্ত ট্রেনিং রয়েছে। পরে তাদের আমার স্যারের কক্ষে অলোচনায় জানতে পারলাম এই বিবাহিত যুবতীর স্বামী একটি ভালো ব্যাংকের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। তার স্বামী এখন তাকে তালাক দিতে চাইছে মেয়েটি অবৈধ সম্পর্ক আছে অজুহাত তুলে। মেয়েটি একান্ত ভাবে আমাকে শেয়ার করে নোংরা বিষয়টি নিয়ে বেশ কয়েক বার অাত্বহত্যার করার মতো সিদ্ধান্ত নিয়ে ছিল। তাকে আশ্বস্ত করে জানলাম ঘটনার রহস্য। মেয়েটি মনের জ্ঞাতেই স্বীয় ইচ্ছায় নিজের সোনালী যৌবনের রুপোলী দেহের উলঙ্গ অবস্থায় নিজের মোবাইলে ভিডিও চিত্র এবং স্থির চিত্র ধারণ করে। পরে সেটি ডিলিট না করে মোবাইলে রেখে দেয়। র্দূভাগ্যক্রমে মোবাইলটি কলেজে হারিয়ে যায়।পরবর্তীতে খুজে পাওয়া মোবাইলের মালিক তাকে ব্লেকমেইল করে সর্বশ ভোগ করে বেশ কয়েক বার। শর্ত ছিল ভিডিও, স্থির চিত্র ডিলিট করে দিবে, কিন্তু সেগুলো ডিলিট না করে তাকে ধারাবাহিক ভাবে ব্লেকমেইল (স্বামীকে জানিয়ে দিবে বলে) তার সেই ভিডিও দেখিয়ে বিয়ের পর ও কয়েক বার অপকর্মের সুযোগটা নেয়। মেয়েটি নিরুপায় হয়ে অপকর্মের সহযোগিতা করে অাসতে ছিল। বিবাহিত স্বামী, স্ত্রীর খারাপ, দুচিন্তাগ্রস্থ মানসিকতার সামান্য বিষয়ে খারাপ ধারণা পোষণ করতে থাকে। হয়তো পূর্বের সম্পর্ক নিয়ে সন্দেহ করতে থাকে। অবশেষে মেয়েটি মাকে বিষয়টি শেয়ার করে আমাদের সরণাপন্ন হয়। সেই রাতেই অপরাধীকে আটক করে তার যাবতীয় প্রমাণ বাজেয়াপ্ত করি। মেয়েটির স্বামী বিষয়টা কখনোই জানতে পারে নাই। যতটুকু জেনেছি তার সংসার এখন চলছে। মেয়েটির স্বামীর সংসারের ভবিষ্যতের কথা মাথায় নিয়ে মামলা করা হয় নাই। তাছাড়া massenger এ নুড ছবির আদান প্রদান ও খারাপ। কখনো হ্যাকারের হাতে গেলেও পরিনতি একই হবে। সবার প্রতি অনুরোধ করব, স্তন ক্যান্সারের ডাক্তারী পরামর্শে স্তনে গোটা অাছে পরীক্ষার জন্য, দেহের অবয়ব গঠন, রুপ যৌবন পরীক্ষার নামে, স্বামী স্ত্রী মিলে দুষ্টামির ছলে নিজের মোবাইলে কোন, স্থির ছবি, ভিডিও ধারণা করলেও সাথে সাথে ডিলিট করার জন্য পরামর্শ দিচ্ছি। মনের অজানা কারণে, কেউ শেয়ার করে নিয়ে ফেললে, মোবাইল হারিয়ে গেলে, ছিনতাই হয়ে গেলে বা মোবাইল রিফিয়ারিং দোকানে গেলে। তোমার, তোমার স্ত্রীর, তোমার মেয়ের, আত্বীয় পরিজনের হলেও তার সর্বনাশ হবেই। তাই বিষয়টা সবাইকে সর্তক করার জন্য আমার এই ক্ষুদ্র লেখা। আজই নিজের মোবাইলে রাখা নিজের গোপন বিষয়াবলী ধ্বংস করুন। সিডনি প্রবাসী বন্ধু Shahriar Karim এর কারণেই আমার এই লেখা। এতে যদি অন্তত একজনেরই উপকার হয়। সর্তক থাকবি, ভালো থাকবি। কপি করলে লিংক রাখার জন্য অনুরোধ রইল।

 

 

 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
সম্পাদক
শরীফ মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক
নাঈম পারভেজ অপু
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক
কাউসার হোসেন সুইট
উপদেষ্টামন্ডলী
মোঃ ইমরান হোসেন চৌধুরী
কার্যালয়
১০৫, এয়ারপোর্ট রোড, আওলাদ হোসেন মার্কেট (৩য় তলা)
তেজগাঁও, ঢাকা-১২১৫।
ফোন ও ফ্যাক্স :+৮৮০-০২-৯১০২২০২
সেল : ০১৭১১২৬১৭৫৫, ০১৯১২০২৩৫৪৬
E-Mail: banglarchokh@yahoo.com, banglarchokh.photo1@gmail.com
© 2005-2020. All rights reserved by Banglar Chokh Media Limited
Developed by eMythMakers.com
Close