banglarchokh Logo

সাভারে বিরল প্রজাতির লক্ষীপেঁচা উদ্ধার

সাভার থেকে শেখ এ কে আজাদ
বাংলার চোখ
 সাভারে বিরল প্রজাতির লক্ষীপেঁচা উদ্ধার

সাভারে বিরল প্রজাতির একটি লক্ষীপেঁচা আহত অবস্থায় ধরা পড়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে পৌর এলাকার ভাগলপুর মহল্লায় বেঙ্গল ফাইন নিরামিকস কারখানার ভিতর থেকে এই পেঁচাটি উদ্ধার করেন কারখানাটির একজন কর্মকর্তা। পরে পেঁচাটিকে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে বন অধিদপ্তরের বন্য প্রাণী অপরাধ দমন ইউনিটের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

মাঝারি আকৃতির এই পেঁচাটির শরীরের তুলনায় মুখমন্ডল অনেকাংশেই বড়। লম্বা পাখনা, ফ্যাকাশে রঙয়ের এবং মুখের গড়ন হৃদয় আকৃতির। এর শক্তিশালী পায়ের থাবার সাথে সুতীক্ষœ নখর রয়েছে।

পেঁচাটিকে উদ্ধারকারী বেঙ্গল ফাইন সিরামিকস কারখানার কর্মকর্তা কানাই মন্ডল  বলেন, কারখানার অভ্যন্তরে কাজ করার সময় একটি পেঁচা হঠাৎ তার সামনে এসে ফ্লোরে পড়ে। তিনি সেটিকে ধরতে গেলে সুতীক্ষ নখর দিয়ে তার হাতে দুটি আচড় দেয়। পরে তিনি দেখতে পান বিরল প্রজাতির এ পাখিটি আহত, উড়তে পারছে না। তখন তিনি দ্রুত পাখিটিকে সাভার প্রণিসম্পদ অফিসে নিয়ে চিকিৎককে দেখিয়ে ওষুধ সেবন করান।

পরে তিনি রাজধানীর আগারগাঁওয়ে বন অধিদপ্তরে যোগাযোগ করলে বন্য প্রাণী অপরাধ দমন ইউনিটের জুনিয়ার ওয়াইলড লাইফ স্কাউট মো. আব্দুল মালেক এসে সন্ধ্যায় পাখিটিকে নিয়ে যান।

জুনিয়ার ওয়াইলড লাইফ স্কাউট মো. আব্দুল মালেক কালের কণ্ঠকে বলেন, লক্ষীপেঁটি প্রাপ্তবয়স্ক। সাধারণত বিল্ডিংয়ের সাইডে এরা বসবাস করে, যেকোনো ভাবে পাখিটি পায়ে আঘাত পাওয়ার কারণে ভারসাম্য রক্ষা করতে না পেরে উপর থেকে পড়ে যায়। পেঁচাটিকে নিয়ে প্রথম কাজ হবে এটিকে সুস্থ করে তোলা। পরে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলাপ করে এটিকে কোথাও অবোমুক্ত করে দেয়া হবে।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কপিরাইট © 2019 বাংলারচোখ.কম কর্তৃক সর্ব স্বত্ব ® সংরক্ষিত। Developed by eMythMakers.com