banglarchokh Logo

শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে মেহেরপুরে আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের পুষ্পমাল্য অর্পণ

মেহেরপুর প্রতিনিধি
বাংলার চোখ
 শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে মেহেরপুরে আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের পুষ্পমাল্য অর্পণ

নানা কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে মেহেরপুরে পালিত হচ্ছে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস। দিবসটি উপলক্ষে জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে শহরের কলেজমোড়ে অবস্থিত স্মুতিসৌধে পুষ্পমালা অর্পন করা হয়েছে। শনিবার সকাল ১১ টার দিকে জেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি আব্দুল হালিমের নেতৃত্বে পুষ্পমালা অর্পন করা হয়। এসময় জেলা আওয়ামীলীগের মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক আতাউল হক লালমিয়া, আইন বিষয়ক সম্পাদক ও জজ কোর্টের পিপি এ্যাাড. পল্লব ভট্টাচার্য, প্রচার সম্পাদক বুলবুল আহমেদ, কোষাধ্যক্ষ সিরাজুল ইসলাম, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক সরফরাজ হোসেন মৃদুল, সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান হিরন, সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইসলাম আনু, শহর যুবলীগের  সভাপতি শেখ কামাল, সাধারণ সম্পাদক তৌহিদুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি এ কে আজাদ সাগর ,যুবলীগ নেতা আল মামুন ,ওয়ার্ড সভাপতি কে এম বদরুল হাসান, সাধারন সম্পাদক প্রবির মিত্র সহ মুক্তিযোদ্ধা, সাংস্কৃতিক কর্মী, বিভিন্ন শেণি পেশার মানুষ সভায় অংশ নেয়।

মেহেরপুরে যুবলীগের পুষ্পমাল্য অর্পণ

মেহেরপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে জেলা আওয়ামী যুবলীগের পক্ষ হতে স্মৃতিসৌধে পুষ্পমালা অর্পন করা হয়েছে। শনিবার সকাল ১১ টার দিকে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক সরফরাজ হোসেন মৃদুলের নেতৃত্বে শহরের কলেজ মোড়ে অবস্থিত  স্মৃতিসৌধে পুষ্পমালা অর্পন করা হয়। এসময় জেলা যুবলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান হিরন, সদর উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইসলাম আনু, শহর যুবলীগের  সভাপতি শেখ কামাল, সাধারণ সম্পাদক তৌহিদুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি এ কে আজাদ সাগর ,যুবলীগ নেতা আল মামুন সহ মুক্তিযোদ্ধা, সাংস্কৃতিক কর্মী, বিভিন্ন শেণি পেশার মানুষ সভায় অংশ নেয়।

 ছাত্রলীগ (বিসিএল) এর শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন

১৪ ডিসেম্বর শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ (বিসিএল) মেহেরপুর জেলা শাখার উদ্যোগে শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি ও পুস্পমাল্য অর্পণ করা হয়েছে। শনিবার সকালে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ (বিসিএল) এর কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও মেহেরপুর জেলা ছাত্রলীগ বিসিএল এর সভাপতি নুর উস সাফা প্লাবনের নেতৃত্বে শ্রদ্ধাঞ্জলি ও পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়। এসময় প্লাবন বলেন, একটি জাতির পিছিয়ে পড়ার ছোট্ট একটি গল্প শিক্ষাবিদ ৯৯১ জন, সাংবাদিক ১৩ জন, চিকিৎসক ৪৯ জন, আইনজীবী ৪২ জন এবং অন্যান্য ১৬ জন আগামী প্রজন্মের জন্য দেশপ্রেমের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করতে জীবন দিয়ে গেছেন। ১৪ ডিসেম্বর বাঙ্গালী জাতির একটি শোকাবহ দিন। হানাদার পাকিস্তানি বাহিনী ও তাদের এদেশীয় দোসর বিশ্বাসঘাতক স্বাধীনতাবিরোধী চক্রের নিশংসতা এবং এক ভয়ঙ্কর নীলনকশা বাস্তবায়নের একটি প্রামাণ্য দলিল।
এসময় গাংনী উপজেলা জাসদের সভাপতি মোঃ কামরুল ইসলাম দরবেশ, বিশিষ্ট সাংবাদিক ও গবেষক আতাউর রহমান, মোঃ কামরুজ্জামান ডাবলু অ্যাড. আমিনুল ইসলাম রতন,সাব্বির হোসেন, মহিবুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কপিরাইট © 2020 বাংলারচোখ.কম কর্তৃক সর্ব স্বত্ব ® সংরক্ষিত। Developed by eMythMakers.com