banglarchokh Logo

মোবাইলে কথা বলতে বলতে ট্রেনের ইঞ্জিনের নিচে কাটা পড়ে দুই পা বিচ্ছিন্ন

আমিনুল ইসলাম বাবু স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বাংলার চোখ
 মোবাইলে কথা বলতে বলতে ট্রেনের ইঞ্জিনের নিচে কাটা পড়ে দুই পা বিচ্ছিন্ন

মোবাইলে কথা বলতে বলতে ট্রেনের ইঞ্জিনের নিচে কাটা পড়ে দু পা বিচ্ছিন্ন যুবক ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি। যুবকের নাম মোশাররফ হোসেন খান (২৪)। মঙ্গলবার (৭সেম্পেম্বর) সকালে ঘটনাটি ঘটে।

গুরুতর আহত অবস্থায় ঢাকা রেলওয়ে থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পঙ্গু হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখান থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়।
ঢাকা রেলওয়ে থানা (কমলাপুর) ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মাজহার-উল-হক বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন কমলাপুর রেলস্টেশনের ৮ নম্বর প্লাটফর্মে একটি ট্রেনের ইন্জিন গুলানোর সময় অসাবধানতা বসত ইঞ্জিনের নিচে দুপা কাটা পড়ে। প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাদ দিয়ে তিনি বলেন, ঘটনার সময় ছেলেটি মোবাইলে ফোনে কথা বলছিল। ইন্জিন টি একাধিকবার হরেন দিচ্ছিল। কিন্তু ছেলেটা হয়তো খেয়াল করেনি। অসাবধানতার কারনেই ঘটানাটি ঘটেছে। মোশাররফ বর্তমানে ঢামেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নরসিংদী জেলার রায়পুরা উপজেলার আব্দুস ছাত্তারে ছেলে। দুই ভাই পাঁচ বোনের মধ্যে মোশাররফ ৪র্থ।

মোশারফ হোসেনের ভগ্নিপতি তালেব হোসেন বলেন, মোশাররফ ঢাকার আজিমপুরে চাচা স্বপন খান য়ের বাসায় থেকে এ্যালিফ্যান রোডে চাচার জুতার দোকানে কাজ করতো। তিনি আরও বলেন, আজ বুধবার তার ২য় ডোজ টিকা নেয়ার কথা ছিল গ্রামের বাড়িতে। তাই ঢাকা থেকে সকালে কমলাপুর রেলস্টেশনে গিয়েছিল বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্যে। সেখানে গিয়ে দূর্ঘটনার শিকার হয় মোশাররফ। সে বর্তমানে অপারেশন থিয়েটারে রয়েছে।

ঢামেক হাসপাতালের জরুরী বিভাগের আবাসিক চিকিৎসক জানিয়েছেন, তার দু`পা কোমরের নিচের অংশ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। অতিরিক্ত রক্ত খনন হয়েছে। আমাদের চিকিৎসারা আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছেন। তার অবস্থা আশংকাজনক।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কপিরাইট © 2021 বাংলারচোখ.কম কর্তৃক সর্ব স্বত্ব ® সংরক্ষিত। Developed by eMythMakers.com