Banglar Chokh | বাংলার চোখ

ভৈরবে চোর সনাক্তের পর চোরাই গাভী ফেরত মালিককে

এম.আর রুবেল, ভৈরব প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৩:২৫, ২০ অক্টোবর ২০২২

ভৈরবে চোর সনাক্তের পর চোরাই গাভী ফেরত মালিককে

নিজস্ব ছবি

কিশোরগঞ্জের ভৈরবে একটি বিদেশী জাতের গাভী মঙ্গলবার মধ্য রাতে চুরি করে নিয়ে যাওয়ার পরদিন দুপুরে ওই গরুচোরকে সনাক্ত করেন গাভীর মালিক সহ এলাকাবাসী লোকজন। গতকাল বুধবার বিকেলে চোরের হেফাজতে থাকা চুরি হওয়া গাভীটি  মালিককে ফেরত দেন।
সনাক্তকৃত গরুচোর চক্রের সদস্যের নাম মোঃ রুস্তম মিয়া। সে পৌর এলাকার কমলপুর পশ্চিমপাড়ার মৃত হেলিম মিয়ার ছেলে এবং কমলপুর ৪নং ওয়ার্ড শ্রমিক দলের সভাপতি।
জানাযায়, ১৮ অক্টোবর, মঙ্গলবার রাতে কমলপুর পশ্চিম পাড়ার মোঃ শফিকুল ইসলামের বাড়ি থেকে বিদেশী জাতের দুটি গরু চুরি করে পিকআপ অন্যত্র নিয়ে যাওয়ার সময় মাছের প্রজেক্টের নাইটগার্ড আলামিন দেখে ফেলায় একটি গরু রাস্তায় ফেলে অন্যটি নিয়ে যায় চোরচক্রের সদস্যরা। 
পরে ওইদিন বুধবার সকালে গরুর মালিক পাশ্ববর্তী রাস্তা থেকে একটি গরু খোঁজে পায়। এর সূত্রধরে সে কালিকাপ্রসাদ এলাকার তাজুল ইসলামকে সন্দেহ করে কথা বলেন এলাকার লোকজন। পরে তাজুল ইসলাম কমলপুর এলাকার মৃত হেলিম মিয়ার ছেলে রুস্তম মিয়ার নাম বলেন। এলাকাবাসী লোকজন সহযোগিতায় রুস্তম মিয়াকে চাপ দিলে অবশেষে চুরি হওয়া গরুটি মালিককে গতকাল বুধবার বিকেলে ফেরত দেন। পরে রুস্তমের ভাষ্যমতে চুরির সময় গরু বহনকারী পিকআপটিও সনাক্ত করেন এলাকাবাসী।
কমলপুর পশ্চিমপাড়া এলাকার আব্দুর রশিদ মিয়া জানান, আমরা রাতে ঘুমাতে পারিনা চোরের যন্ত্রণায়। কয়েক বছর ধরে আমাদের এলাকায় গরু চুরির প্রবণতা বৃদ্ধি পেয়েছে। গরু চুরি রোধে প্রশাসন নজরদারি ও সহযোগিতা কামনা করেন তিনি।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়