Banglar Chokh | বাংলার চোখ

রাঙামাটির লংগদু’য় যুবকের রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার

আলমগীর মানিক,রাঙামাটি থেকে

প্রকাশিত: ১৮:৫৩, ২৪ নভেম্বর ২০২২

রাঙামাটির লংগদু’য় যুবকের রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার

নিজস্ব ছবি

রাঙ্গামাটির লংগদুতে রাস্তার মধ্যে খুনের আলামত নিয়ে বাবুল মিয়া (৪৫) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে লংগদু থানা পুলিশ। 

বৃহস্পতিবার ( ২৪ নভেম্বর)  সকালে মক্তবে যাওয়া কোমলমতি শিশুদের দেওয়া তথ্যমতে এলাকার সাধারণ মানুষ খবর পেয়ে স্থানীয় প্রশাসন কে খবর দিলে তারা এসে লাশ উদ্ধার করে।

এলাকাবাসীর সূত্রে জানাযায়,  বাবুল মিয়ার(৪৫) বাড়ি ৩নং গুলশাখালী, ৯নং ওয়ার্ড  রহমতপুর  স্বভাব চরিত্রে অত্যান্ত ভালো ছিলেন। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান,রাতে প্রায়১২টা পর্যন্ত বাবুল মিয়া তার বোন জামাইর দোকানে খেলা দেখে  বাসায় চলে যায়। তখন অন্যরা বাসায় ফিরার সময় স্থানীয় কয়েকজন নুরুল ইসলাম নামে এক যুবককে তার বাসার দিকে যেতে দেখে। পরবর্তীতে ভোর আনুমানিক ৬টার দিকে মক্তবের বাচ্চারা রাস্তায় তার মৃতদেহ দেখে স্থানীয় সাধারণ মানুষকে জানালে তারা প্রশাসনকে খবর দেয়।

বাবুল মিয়ার বোন জামাই ফুল মিয়ার কাছে নুরুল ইসরাম সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমার জানামতে বাবুল মিয়া নুরুল ইসলামের নিকট প্রায় দুই লক্ষ টাকার মত পায়। গত রাতেও সে তার বাসায় আসে বলে আমরা জানতে পারি। পরবর্তী সকালে খবর পাই সে রাস্তায় মৃত অবস্থায় আছে।

এবিষয় নুরুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে প্রথমে তিনি বলেন,  আমার বাসা যুবলক্ষী পাড়া,আমি এতো দুর থেকে রাতে বেলায় ওনার বাসায় কেন আসবো। আমি রাতে আমার বাসায় জলপাই বস্তা প্যাকিং করতেছিলাম। তবে কিছুক্ষণ পর তাকে ঘটনাস্থলে দেখেছে এমন প্রত্যক্ষদর্শীদের থেকে সাক্ষাৎ  নেওয়ার সময় সে এসে বলে, স্যার আমি মিথ্যা বলেছি, আমি গত প্রায় ১২টার দিকে তার বাসায় আসি কিছু টাকা নেওয়ার জন্য। একথা বলে সে কমর থেকে ৫০০০টাকা বের করে দেখায় যে এটাকা গুলো আমি তার থেকে ধার নিয়ে চলে যাই।

গুলশাখালী ইউপি চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম বলেন,ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক, এবিষয় এখনো বিস্তারিত কিছু বলা যাচ্ছেনা।পুলিশ আসছে তদন্ত করলে বিস্তারিত বলা যাবে।

এ ঘটনায় লংগদু থানার বাঘাইছড়ি সার্কেল সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার আব্দুল আওয়াল চৌধুরী, তদন্ত ওসি সানজিদ আহমেদ সহ লংগদু থানার একটি টিম ঘটনাস্থলে এসে বিষয়টি নিশ্চিত করে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। এঘটনায় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নুরুল ইসলাম নামে উক্ত যুবককে হেফাজতে নেয়। এবং ময়না তদন্তের জন্য ভিকটিমকে লংগদু থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। পরবর্তীতে এবিষয় আইনী ব্যবস্থা গ্রহণ পূর্বক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়