Banglar Chokh | বাংলার চোখ

নওগাঁয় যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ০১:২৫, ২৯ নভেম্বর ২০২২

নওগাঁয় যৌন হয়রানির অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

ছবি-সংগৃহীত

নওগাঁর রাণীনগরে পঞ্চম শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

গতকাল রোববার রাতে ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে শিক্ষক হাফিজুর রহমানকে (৫২) আসামি করে রাণীনগর থানায় মামলা করেন। হাফিজুর রহমানকে গ্রেপ্তার করে আজ সোমবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয়দের অভিযোগ, শিক্ষক হাফিজুর রহমান দীর্ঘদিন ধরে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নানাভাবে যৌন হয়রানি করে আসছিলেন। এ ঘটনায় ওই শিক্ষককে কয়েকবার সতর্কও করা হয়। এর পরও তিনি আচরণ পরিবর্তন না করায় তার বিচারের দাবিতে গতকাল রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে স্থানীয় লোকজন বিদ্যালয় ঘেরাও করে তাঁকে অবরুদ্ধ করে রাখে। খবর পেয়ে রাণীনগর থানার পুলিশ ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রায় ৫ ঘণ্টা পর বিকেল ৩টার দিকে তাঁকে শাস্তির আশ্বাস দিয়ে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ওই ছাত্রী প্রতিদিনের মতো গত ২০ নভেম্বর সকাল ১০টার দিকে স্কুলে যায়। ওই দিন দুপুর ১২টায় ক্লাস চলাকালীন অভিযুক্ত শিক্ষক অফিস রুমে ওই ছাত্রীকে ডেকে নিয়ে প্রথমে তাকে দিয়ে মাথা টিপায় এবং যৌন নিপীড়ন চালায়। এরপর ওই শিক্ষার্থী বাড়িতে গিয়ে তাঁর সঙ্গে শিক্ষকের অসদচারণের বিষয়টি পরিবারকে জানায়। তারপর ভুক্তভোগীর পরিবারের লোকজন বিদ্যালয়ের সভাপতি, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতিসহ বিভিন্ন জায়গায় জানিয়েও কোনো প্রতিকার না পেয়ে ঘটনাটি গ্রামের লোকজনদের জানায়। এরপর গ্রামের লোকজন গতকাল সকালে গিয়ে ওই শিক্ষকের বিচার দাবিতে বিদ্যালয় ঘেরাও করে তাঁকে অবরুদ্ধ করে।

রাণীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম আজাদ বলেন, ভুক্তভোগী ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে গতকাল রাতে শিক্ষক হাফিজুরকে আসামি করে যৌননিপীড়নের অভিযোগে মামলা করেছেন। মামলায় ওই শিক্ষককে গ্রেপ্তার দেখিয়ে আজ দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়