২৭ জুলাই ২০২১, মঙ্গলবার ০৮:৪১:৪৯ পিএম
সর্বশেষ:

১৬ জুন ২০২১ ০৭:৫৭:০৩ পিএম বুধবার     Print this E-mail this

সংবাদপত্রের কালো দিবসে বিআরজেএ’র আলোচনা সভা

ডেস্ক রিপোর্ট
বাংলার চোখ
 সংবাদপত্রের কালো দিবসে বিআরজেএ’র আলোচনা সভা

গণতন্ত্র ছাড়া গণমাধ্যমের স্বাধীনতা আসবে না,শহীদুল ইসলাম। ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন( ডিইউজে) এর সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম
বলেছেন,গণতন্ত্রের জন্য গণমাধ্যমের স্বাধীনতা অপরিহার্য। কিন্তু বর্তমান সরকার গণতন্ত্র ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতাই নয় সব গণতান্ত্রিক ও সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠান ধবংস করে দিয়েছে।
বর্তমান স্বৈরাচারী সরকারকে হঠাতে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তুলে সরকারের অপশাসনের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে । এ সরকারকে হঠাতে না পারলে দেশ বাঁচানো যাবে না গণমাধ্যমের স্বাধীনতা আসবে না। তিনি জাতির বৃহত্তর স্বার্থে রাজনৈতিক দলগুলো ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহবান জানান।
আজ বুধবার (১৬ জুন ) বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক এসোসিয়েশন (বিআরজেএ) এর কার্যালয় এক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। ‘১৬ জুন সংবাদপত্রের কালো দিবস’ উপলক্ষে
বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক এসোসিয়েশন( বিআরজেএ) চেয়ারম্যান জনাব মুহাম্মাদ সাখাওয়াত হোসেন ইবনে মইন চৌধুরী সভাপতিত্বে ও মুহাম্মদ আবু হানিফ( মহাসচিব) এর সঞ্চালনায় এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় । সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন ভাইস- চেয়ারম্যান ওয়াসিয়ার রহমান যুগ্ম মহাসচিব আবু ইউসুফ,,আলী হোসেন ফরাজি দপ্তর সচিব আব্দুল্লাহ মজুমদার ক্রীড়া সচিব হুমায়ুন কবির তালহা , শহিদুল ইসলাম চৌধুরী মিলন, নাঈম পারভেজ অপু প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।
প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে আরও বলেন ,দেশে এখন পুলিশি শাসন চলছে। কোথাও আওয়ামী লীগের শাসন নেই। বর্তমান পরিস্থিতিতে রাজনৈতিক দলগুলো কোন কর্মসূচী নিয়ে মাঠে নামতে পারছে না।তিনি বলেন দেশের সর্ববৃহত্তম রাজনৈতিক দল ও জোট নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া সহ জোটের শরিকদের জনপ্রিয়তা, দেশে প্রেম সততা ও জনগনের উপর নির্ভাশীল হওয়ার কারণে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার স্বীকার হয়ে,ন্যায় বিচার থেকে বন্চিত হচ্ছে। তিনি বলেন বিজ্ঞ আদালত নিরপেক্ষ ভাবে দায়িত্ব পালন করতে দেশনেত্রী সহ কাউকে কারাগারে থাকতে হতো না।অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে এ সরকারকে বিদায় করতে সবাইকে এক সাথে লড়াই করতে হবে ১৬ জুন যা ঘটেছে একটা সভ্য দেশে তা কল্পনা করা যায় না উল্লেখ করে বলেন, যারা এ সরকারের বিরোধিতা করছে তারাই গুমের শিকার হচ্ছেন;দেশে গুম হওয়ার সঠিক পরিসংখ্যান নেই আইন বর্হিভূত হত্যার শিকার হচ্ছেন। সর্বশেষ ইসলামী বক্তা আদনান গুমের বিষয়টি উল্লেখ করে তিনি বলেন, আদনানের বক্তব্য তরুণদের আকৃষ্ট করার কারণেই ফ্যাসিস্ট সরকারের তাকে গুম করেছে গণআন্দোলন ও গণবিক্ষোভ জনগণের অধিকার। কিন্তু এ সরকার সেটি হরণ করেছে। তিনি বলেন, গণআন্দোলন ও গণঅভূত্থানের মধ্য দিয়ে গণমাধ্যমের স্বাধীনতা ফিরিয়ে আনতে হবে। সাংবাদিক নেতা রুহুল আমিন গাজী ও শাহাদাত হোসেন কে গ্রেফতার করা হলেও বিচার বিভাগ থেকে তার মুক্তি মিলে না। ‘
সভাপতির বক্তব্যে সাখাওয়াত হোসেন ইবনে মঈন চৌধুরী বলেন বলেন, ’৭৫-সালে ১৬ জুন সংবাদপত্র বন্ধ করে দেয়ার ‘কালো দিবস’ পালন করা হয়। কিন্তু বর্তমান সরকারের আমলে কালো দিবস কোনটি সেটি এখন বাছাই করা কঠিন হয়ে পড়েছে। এ প্রসঙ্গে তিনি দৈনিক আমার দেশ, দিগন্ত টেলিভিশনসহ বিভিন্ন গণমাধ্যম বন্ধ, আমার দেশ সম্পাদক মাহমুদুর রহমানকে গ্রেফতার করে নির্যাতন, দৈনিক সংগ্রাম কার্যালয়ে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও বয়োবৃদ্ধ সম্পাদক আবুল আসাদ সাংবাদিক নেতা রুহুল আমিন গাজী ও সাদাত হোসাইনকে গ্রেফতারের বিষয়টি তুলে ধরে বলেন, গত ১২ বছরে শত শত কালো দিবস তৈরি করেছে । এ সরকার গণতন্ত্র বিশ্বাস করে না। গণমাধ্যমের স্বাধীনতা বিশ্বাস করে না গণতন্ত্র এবং স্বাধীনতা সুরক্ষা ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিশ্চিত করার স্বার্থে এ সরকারকে বিদায় করা ছাড়া কোন বিকল্প নেই। এ জন্য ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে

 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
সম্পাদক
শরীফ মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক
নাঈম পারভেজ অপু
আইটি উপদেষ্টা
সোহেল আসলাম
উপদেষ্টামন্ডলী
মোঃ ইমরান হোসেন চৌধুরী
কার্যালয়
১০৫, এয়ারপোর্ট রোড, আওলাদ হোসেন মার্কেট (৩য় তলা)
তেজগাঁও, ঢাকা-১২১৫।
ফোন ও ফ্যাক্স :+৮৮০-০২-৯১০২২০২
সেল : ০১৭১১২৬১৭৫৫, ০১৯১২০২৩৫৪৬
E-Mail: banglarchokh@yahoo.com, banglarchokh.photo1@gmail.com
© 2005-2021. All rights reserved by Banglar Chokh Media Limited
Developed by eMythMakers.com
Close