২৮ জানুয়ারি ২০২২, শুক্রবার ০৩:০৬:৪২ পিএম
সর্বশেষ:

২৬ নভেম্বর ২০২১ ০১:০৫:৫২ এএম শুক্রবার     Print this E-mail this

গোপালগঞ্জে ইজিবাইক চালক হত্যা মামলায় ৫ আসামীর ফাঁসির আদেশ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, গোপালগঞ্জ
বাংলার চোখ
 গোপালগঞ্জে ইজিবাইক চালক হত্যা মামলায় ৫ আসামীর ফাঁসির আদেশ

 গোপালগঞ্জে ইজিবাইক চালক জাহিদুল ইসলাম বাবু হত্যাকান্ডের ঘটনায় দীর্ঘ ৯ বছর ৫ আসামীকে ফাঁসির আদেশ দিয়েছে বিজ্ঞ আদালত। এ রায়ে আসামীর প্রত্যেকে ৫০ হাজার টাকা করেও জরিমানা করা হয়।

আজ বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) দুপুরে গোপালগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অতিরিক্ত দায়রা জজ মো: আব্বাস উদ্দীন এ রায় দেন।

ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন, গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার চন্দ্রদিঘলীয়ার নতুনচর গ্রামের বাবুল ফকিরের ছেলে খালিদ ফকির, একই গ্রামের শুকুর মোল্লার ছেলে রাজ্জাক মোল্লা, চন্দ্রদিঘলীয়ার নতুনচর ভূঁইয়াপাড়া গ্রামের আনিচ ফকিরের ছেলে মো: বিপুল ফকির, কাশিয়ানী উপজেলার মহেশপুর ইউনিয়নের ব্যাসপুর গ্রামের মো: খলিল শেখের ছেলে মো: হাসান শেখ ও নড়াইল জেলার লোহাগড়া উপজেলার চাচাই গ্রামের মো: খোকন মোল্লার ছেলে মো: ফসিয়ার মোল্লা। তবে রায় ঘোষনার সময় ফাঁসির দন্ডপ্রাপ্ত সকল আসামীরা পলাতক ছিল।

আদালতে সরকার পক্ষে সহকারি পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট মো: শহিদুজ্জামান খান ও আসামী পক্ষে অ্যাডভোকেট মো: ফজলুল রহমান খান মামলাটি পরিচালনা করেন| নিহত ইজিবাইক চালক জাহিদুল ইসলাম বাবু গোপালগঞ্জ শহরতলীর মো: নজরুল মোল্যার ছেলে।

মামলার বিবরনে জানাগেছে, ২০১৩ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর ফাঁসির আসামী খালিদ ফকির তার ব্যবহৃত সেলফোন নং ০১৯২৭৭৯১৭৯৮ থেকে ফোন করে জাহিদুল ইসলাম বাবুকে জেলা শহরের কাচাঁ বাজার সংলগ্ন মেইন রোডে আসতে বলে। পরে ফাঁসির আসামিরা কাশিয়ানী উপজেলার ভুলবাড়িয়া ব্রীজের কাছে গিয়ে জাহিদুলকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পালিয়ে যায়। দীর্ঘ দিন নিখোঁজের পরে ২ অক্টোবর ওই স্থান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় ওই দিনই নিহতের পিতা মো: নজরুল ইসলাম খালিদ ফকির ও রাজ্জাক মোল্লাকে আসামী করে গোপালগঞ্জ সদর থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। পরে পুলিশ এজাহার নামীয় দুই আসামীকে গ্রেফতার করে এবং তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী মো: হাসান শেখের বাড়ী থেকে ইজবাইকটি উদ্ধার করে। পরে দীর্ঘ তদন্ত শেষে এ মামলায় আরো দুইজনকে অন্তর্ভূক্ত করে চার্জশিট দাখিল করে পুলিশ। দীর্ঘ দিন মামলা চালার ও শুনানীর পর আদালত ওই ৫ আসামীর বিরুদ্ধে ফাঁসি ও প্রত্যেক আসামীকে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানার আদেশ দেন।

মামলাবাদী ও নিহতের পিতা মো: নজরুল মোল্লা বলেন, আমার ছেলেকে এই ৫ জনে হত্যা করেছে। দীর্ঘ দিন পর আমি ছেলে হত্যার বিচার পেয়েছি। এ রায়ে আমি ও আমার পরিবার খুশি। আমাদের দাবী দ্রুত এ রায় দ্রুত কার‌্যকর করা হোক। যাতে কেউ আর এ ধরনের কাজ করতে সাহস না পায় এবং কেউ যেন তার সন্তানকে এ ভাবে না হারায়।

বাদী পক্ষের আইনজীবী মোঃ মোক্তার আলী বলেন, এ রায়ের মাধ্যমে এ পরিবারটি ন্যায্য বিচার পেয়েছে। আশাকরি উচ্চ আদালত এ রায় বহাল থাকবে এবং রায় কার্য্কর হবে। 

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
সম্পাদক
শরীফ মুজিবুর রহমান
নির্বাহী সম্পাদক
নাঈম পারভেজ অপু
আইটি উপদেষ্টা
সোহেল আসলাম
উপদেষ্টামন্ডলী
মোঃ ইমরান হোসেন চৌধুরী
কার্যালয়
১০৫, এয়ারপোর্ট রোড, আওলাদ হোসেন মার্কেট (৩য় তলা)
তেজগাঁও, ঢাকা-১২১৫।
ফোন ও ফ্যাক্স :+৮৮০-০২-৯১০২২০২
সেল : ০১৭১১২৬১৭৫৫, ০১৯১২০২৩৫৪৬
E-Mail: banglarchokh@yahoo.com, banglarchokh.photo1@gmail.com
© 2005-2022. All rights reserved by Banglar Chokh Media Limited
Developed by eMythMakers.com
Close