Banglar Chokh | বাংলার চোখ

বগুড়া জেলা ছাত্রলীগে পদ না পেয়ে দলীয় কার্যালয়ে তালা

প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৪:৩০, ৮ নভেম্বর ২০২২

বগুড়া জেলা ছাত্রলীগে পদ না পেয়ে দলীয় কার্যালয়ে তালা

ছবি:সংগৃহীত

বগুড়া জেলা ছাত্রলীগের নতুন কমিটিতে পদ না পেয়ে দলীয় কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়ে দিয়েছেন পদবঞ্চিতরা। নতুন কমিটি ঘোষণাকে কেন্দ্র করে বিক্ষোভ করছেন তাঁরা। আজ মঙ্গলবার সকাল ১১টা থেকে পদবঞ্চিত নেতাকর্মীরা এই বিক্ষোভ শুরু করেছেন।


বিক্ষোভ থেকে নেতাকর্মীরা নতুন কমিটি ‘অবৈধভাবে ঘোষণা করা হয়েছে’ বলে মন্তব্য করেন। একইসঙ্গে কমিটি বাতিলের জোর দাবি জানান।

আযিযুল হক কলেজ শাখা ছাত্রলীগের অর্থবিষয়ক সম্পাদক তৌহিদ জানান, চলতি বছরের ২২ জানুয়ারি বগুড়া জেলা ছাত্রলীগের মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটি বিলুপ্ত করা হয়। এরপর গত ৭ ফেব্রুয়ারি ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ বগুড়ায় আসেন। তাঁরা নতুন কমিটিতে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক হতে আগ্রহী ৫৬ জনের জীবনবৃত্তান্ত জমা নেন। এরপরও ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা করা হচ্ছিল না। 

শেষে গতকাল সোমবার রাত পৌনে ৯টার দিকে নতুন কমিটির ঘোষণা দেওয়া হয়। সেখানে সজীব সাহাকে সভাপতি ও আল মাহিদুল ইসলাম জয়কে সাধারণ সম্পাদক করা হয়। 

পদপ্রত্যাশীদের মধ্যে সহসভাপতি পদে ১৭ জন, যুগ্ম সম্পাদক পদে পাঁচজন ও সাংগঠনিক সম্পাদক পদে ছয়জনের নাম ঘোষণা করা হয়। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এই কমিটির তালিকা প্রকাশের পর থেকেই ক্ষোভ প্রকাশ শুরু করেন পদপ্রত্যাশী নেতারা। 

আযিযুল আরও জানান, যাদের বগুড়ার কেউ চেনে না, তাদেরকেই কমিটিতে গুরুত্বপূর্ণ স্থান দেওয়া হয়েছে। তাঁরা এই কমিটিকে অবৈধ ঘোষণা করে বাতিলের দাবিতে রাতেই দলীয় কার্যালয়ে এসে তালা ঝুলিয়ে দেন। এরপর বিক্ষোভ মিছিল এবং দলীয় কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।

শহর ছাত্রলীগের সভাপতি ওবায়দুল্লাহ সরকার স্বপন দলীয় কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ থেকে বলেন, ‘নতুন কমিটিতে পরীক্ষীত ও ত্যাগী নেতাদের মূল্যায়ন করা হয়নি। সাধারণ সম্পাদক আল মাহিদুল ইসলাম জয় কোনো দিনও জেলার রাজনীতিতে সক্রিয় ছিল না। এ ছাড়া এমন একজনকে সভাপতি করা হয়েছে যিনি ওই পদের যোগ্য না।’

মিথিলেষ কুমার প্রসাদ শহর ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান নতুন কমিটির সহসভাপতি বলেন, ‘এই অবৈধ্য কমিটি বাতিল না করা পর্যন্ত দলীয় কার্যালয়ের সামনে তাঁরা অবস্থান করবেন।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়