Banglar Chokh | বাংলার চোখ

নিরাপদ সড়কের জন্য শিক্ষার্থীদের হাত ধরেই ভবিষ্যৎ প্রজন্ম সচেতন হবে

প্রেস ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৮:০৪, ২ আগস্ট ২০২২

নিরাপদ সড়কের জন্য শিক্ষার্থীদের হাত ধরেই ভবিষ্যৎ প্রজন্ম সচেতন হবে

ছবি

‘ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য নিরাপদ সড়ক চাই’ শীর্ষক শিক্ষার্থী সমাবেশে বক্তারা বলেছেন, ‘পথ যেন হয় শান্তির, মৃত্যুর নয়’ এমন শ্লোগান নিয়ে ২৯ বছর আগেই প্রতিষ্ঠা হয় নিরাপদ সড়ক চাই সংগঠনটি। কিন্তু আমাদের কিছু চালক ও যাত্রীর অসতর্কতা এবং অসচেতনতার কারণে সড়ক নিরাপদ করা যায়নি। এটি আমাদের জন্য দুঃখের। কারণ নিরাপদ সড়কের জন্য চালক-যাত্রী ও পথচারি- সকলকেই সচেতন হতে হয়। আজ ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য নিরাপদ সড়ক চাই প্রতিপাদ্য বিষয়ে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক ও অভিভাবকদের সড়ক নিরাপত্তা সম্পর্কে সচেতন করতে শিক্ষার্থী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এটি একটি চমৎকার উদ্যোগ। আমরা মনে করি যারা এখানে উপস্থিত হয়েছেন, তারা আশাপাশের প্রত্যেককে নিজ নিজ অবস্থান থেকে সবগুলো বিষয় নিয়ে অবহিত এবং সচেতন করে তুলবেন। তাহলে পর্যায়ক্রমে শিক্ষার্থীদের হাত ধরেই সড়ক নিরাপদ হয়ে ওঠবে।   
  সোমবার সকালে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাব ভবনের বঙ্গবন্ধু হলে নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) চট্টগ্রাম মহানগর কমিটি সড়ক দূর্ঘটনা রোধকল্পে জনসচেতনতামূলক তিন মাসের নানা কর্মসূচির অংশ হিসেবে ‘ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য নিরাপদ সড়ক চাই’ প্রতিপাদ্য বিষয়ে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক ও অভিভাবকদের সড়ক নিরাপত্তা সম্পর্কে সচেতনতায় ডায়মন্ড সিমেন্ট লিমিটেডের সহযোগিতায় 
আয়োজিত শিক্ষার্থী সমাবেশে বক্তারা এসব কথা বলেন।
সভাপতির বক্তব্যে এসএম আবু তৈয়ব বলেন, সচেতনতা ও সতর্কতার মাধ্যমে সড়ক দুর্ঘটনা মোকাবেলা করা সম্ভব। এতে আমরা নিজেরা যেমন সড়কে নিরাপদ থাকবো তেমনি শিশু, শিক্ষার্থী ও অন্যান্য প্রিয় মুখ সবাই নিরাপদ থাকবে আর আমাদের দেখতে হবে না রাস্তায় স্বজন হারানোর আহাজারি। তাই সড়ক দুর্ঘটনা প্রতিরোধে চালক, পথচারী ও যাত্রীদের মধ্যে বেশি সচেতনতা ও সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। সড়ক দুর্ঘটনা রোধে জনসচেতনতা এবং আইন-কানুন মেনে চলার সংস্কৃতি তৈরি করতে হবে।
নিরাপদ সড়ক চাই মহানগর কমিটির এসএম আবু তৈয়বের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ এনামের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত শিক্ষার্থী সমাবেশে অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ  কমিশনার (দক্ষিণ) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক চৌধুরী ফরিদ, দৈনিক আজাদীর পরিচালনা সম্পাদক ওয়াহিদ মালেক, ডায়মন্ড সিমেন্ট লিমিটেডের পরিচালক লায়ন মো. হাকিম আলী। স্বাগত বক্তব্য রাখেন নিরাপদ সড়ক চাই চট্টগ্রাম মহানগর কমিটির সাধারণ সম্পাদক শফিক আহমেদ সাজীব। স্কুলের প্রতিনিধিদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, চট্টগ্রাম আইডিয়াল হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক শাহিদা নাসরিন শিউলি, চট্টগ্রাম মডেল পাবলিক স্কুলের পরিচালক টিংকু বড়ুয়া। 
জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আত্মার মাগফেরাত কামনা ও সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ইলিয়াস কাঞ্চনের স্ত্রী জাহানারা কাঞ্চন এবং সম্প্রতি মিরসরাইয়ে রেলপথ দুর্ঘটনায় নিহতদের  আত্মার মাগফেরাত কামনা করে যার যার ধর্ম মতে নিরবতায় দাঁড়িয়ে একমিনিট প্রার্থনা করে। শোকপ্রস্তাব পাঠ করেন নিরাপদ সড়ক চাই চট্টগ্রাম মহানগর কমিটির আইন বিষয়ক সম্পাদক এড. টিপু শীল জয়দেব। ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে বক্তব্য রাখেন, নিরাপদ সড়ক চাই চট্টগ্রাম মহানগর কমিটির সহ-সাধারণ সম্পাদক আরশাদ-উর-রহমান।
অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) নোবেল চাকমা, সহকারী পুলিশ কমিশনার (কোতোয়ালী) মুজাহিদুল ইসলাম, কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাহিদুল কবির, পরিবেশবিদ ইমতিয়াজ আহমেদ, নিরাপদ সড়ক চাই চট্টগ্রাম মহানগর কমিটির অর্থ সম্পাদক মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল লিটন, সমাজ কল্যাণ ও ক্রীড়া সম্পাদক রেজাউল করিম রিটন, যুব বিষয়ক সম্পাদক সনত তালুকদার, নির্বাহী সদস্য সিরাজুল মনির মানিক, ইয়াসিন আরাফাত কচি, রেবা বড়–য়া, মোহাম্মদ ইব্রাহিম প্রমুখ।

শেয়ার করুনঃ

সর্বশেষ

জনপ্রিয়